সেনবাগে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান

সেনবাগ: নকল ওষধ বিক্রয় করায় এবং ড্রাগ লাইসেন্স না থাকায় দায়ে নোয়াখালীর সেনবাগ উপজেলার ছমিরমুন্সীহাটে ১টি প্রতিষ্ঠানে সিলগালা ও ৪টি প্রতিষ্ঠানে ১ লাখ ৫ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত।

মঙ্গলবার বিকেলে নোয়াখালীর নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট আফরোজা হাবিব শাপলা ভ্রাম্যমান এ আদালত পরিচালনা করে জরিমানা আদায় করেন। এ সময় নোয়াখালী জেলা ঔষধ তত্বাবধায়ক ইমরান হোসেন ও সেনবাগ সরকারী হাসপাতালের মেডিকেল অফিসার ডা: সাইফুল্লাহ রাসেল অভিযানে উপস্থিত ছিলেন।

প্রতিষ্ঠান গুলো হলো মদিনা ডায়াগনিষ্ট সেন্টারে সিলগালা ও মালিক আবদুল কাদের এর ১ মাসের জেল অনাদায়ে আরো ১০দিন সহ ৩৫ হাজার টাকা, আবুল হোসেনে যোবায়ের ফার্ম্মেসী ৩০ হাজার, ফকির আহাম্মদের জননী ফার্মেসীর ৩০ হাজার, মোজাম্মেল হকের ইসলামিয়া ফার্মেসীর ১০ হাজার টাকা সহ ১ লাখ ৫ হাজার টাকা ।

ভ্রাম্যমান আদালত সুত্রে জানাগেছে জানায়, বাংলাদেশ ড্রাগস অ্যাক্ট ১৯৪০ এবং মেডিকেল প্র্যাকটিজ এবং প্রাইভেট ক্লিনিক এন্ড ল্যাবরেটরী অর্ডিনেন্স ১৯৮২ মোতাবেক মোবাইল কোর্ট ধারা ১৮ ও ১৭ অনুযায়ী মিস ব্র্যান্ডের ঔষধ গুনগত মান সম্পন্ন নয় এমন ঔষধ বিক্রয় করায় এবং ড্রাগ লাইসেন্স না থাকায় জরিমানা করা হয়েছে।

জাহাঙ্গীর পাটোয়ারী/এমআরআর

Leave a Reply

Your email address will not be published.